1. mdmf@gmil.com : আশিষ আচার্য্য : আশিষ আচার্য্য
  2. asrapur121@gmail.com : আশরাফুর রহমান ইমন : আশরাফুর রহমান ইমন
  3. borhanuddin121@gmail.com : বোরহানউদ্দিন প্রতিনিধি : বোরহানউদ্দিন প্রতিনিধি
  4. admin@bholatimes24.com : Bhola Times | Online Edition : Bhola times Online Edition
  5. ssikderreport@gmail.com : চরফ্যাশন প্রতিনিধি : চরফ্যাশন প্রতিনিধি
  6. dowlatkhan@gmail.com : দৌলতখান প্রতিনিধি : দৌলতখান প্রতিনিধি
  7. easin21@gmail.com : ইয়াছিনুল ঈমন : ইয়াছিনুল ঈমন
  8. gourabdas121@gmail.com : গৌরব দাস : গৌরব দাস
  9. hasanpintu2010@gmail.com : লালমোহন প্রতিনিধি : লালমোহন প্রতিনিধি
  10. hasnain50579@gmail.com : HASNAIN AHMED : MD HASNAIN AHMED
  11. iqbalhossainrazu87@gmail.com : ইকবাল হোসেন রাজু : ইকবাল হোসেন রাজু
  12. iftiazhossen5@gmail.com : ইসমাইল হোসেন ইফতিয়াজ : ইসমাইল হোসেন ইফতিয়াজ
  13. mdmasudalom488@gmail.com : Afnan masud : Afnan masud
  14. mnoman@gmail.com : এম,নোমান চৌধুরী : এম,নোমান চৌধুরী
  15. monpura@gmail.com : মনপুরা প্রতিনিধি : মনপুরা প্রতিনিধি
  16. najmu563@gmail.com : নাজমুল মিঠু : নাজমুল মিঠু
  17. najrul125@gmail.com : নাজরুল ইসলাম সৈারভ : নাজরুল ইসলাম সৈারভ
  18. news.bholatimes1@gmail.com : ডেস্ক রিপোর্ট : ডেস্ক রিপোর্ট
  19. news.bholatimes@gmail.com : News Room : News Room
  20. nirob121@gmil.com : ইউসুফ হোসেন নিরব : ইউসুফ হোসেন নিরব
  21. abnoman293@gmail.com : এম নোমান চৌধুরী চরফ্যশন প্রতিনিধি : এম নোমান চৌধুরী চরফ্যশন প্রতিনিধি
  22. nhohechowdhury@gmail.com : OHE CHOWDHURY NAHID : OHE CHOWDHURY NAHID
  23. mdmasudaom488@gmil.com : তজুমদ্দিন প্রতিনিধি : তজুমদ্দিন প্রতিনিধি
  24. sanjoypaulrahul11@gmail.com : sanjoy pal : sanjoy pal
  25. sohel123@gmail.com : সোহেল তাজ : সোহেল তাজ
  26. btimes536@gmail.com : সৌরভ পাল : সৌরভ পাল
  27. bholatimes2010@gmail.com : স্টাফ রিপোর্টার : স্টাফ রিপোর্টার
বৃহস্পতিবার, ০১ ডিসেম্বর ২০২২, ০৬:৫১ পূর্বাহ্ন

মিরাজের সামনে শুধুই বোল্ট

স্টাফ রিপোর্টার ॥
  • সময়: বৃহস্পতিবার, ২৭ মে, ২০২১

দৈনিক ভোলা টাইমস্ :: গত জানুয়ারিতে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে দলে ফিরেই বল হাতে স্পিন ঘূর্ণি দেখিয়েছিলেন মেহেদী হাসান মিরাজ। পুরস্কার হিসেবে মিলেছিল আইসিসি ওয়ানডে বোলার র‌্যাঙ্কিংয়ের চার নম্বর জায়গা। পরে এক ধাপ পিছিয়ে পাঁচে নেমে যান ডানহাতি এই স্পিনার। শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে প্রথম দুই ওয়ানডে দিয়ে র‌্যাঙ্কিংয়ে আরও এগোলেন মিরাজ।
লঙ্কানদের বিপক্ষে দুই ওয়ানডেতে ৭ উইকেট নিয়ে র‌্যাঙ্কিংয়ে তিন ধাপ এগিয়েছেন মিরাজ। পাঁচ নম্বর থেকে দুই নম্বরে উঠে গেছেন তিনি। র‌্যাঙ্কিংয়ে শীর্ষে থাকা নিউজিল্যান্ড পেসার ট্রেন্ট বোল্টই আছেন কেবল মিরাজের সামনে। লঙ্কানদের বিপক্ষে তৃতীয় ওয়ানডেতে দুর্দান্ত কিছু করতে পারলে চূড়ায় উঠে যাওয়ার সম্ভাবনা প্রবল এ স্পিনারের। এখন পর্যন্ত ওয়ানডেতে এটাই তার ক্যারিয়ার সেরা র‌্যাঙ্কিং। উন্নতি হয়েছে মুস্তাফিজুর রহমানেরও। দুই ম্যাচে ৬ উইকেট নেওয়া বাঁহাতি এই পেসার ৯ ধাপ এগিয়ে ১৮ থেকে নয় নম্বরে উঠে এসেছেন। সাকিব আল হাসান আছেন ১৮ নম্বরে।
বাংলাদেশের হয়ে এর আগে ওয়ানডের বোলার র‌্যাঙ্কিংয়ে সেরা দুইয়ে উঠেছেন কেবল দুজন। ২০০৯ সালে প্রথম বাংলাদেশি হিসেবে শীর্ষে ওঠেন সাকিব। ২০১০ সালে দুইয়ে ওঠেন আব্দুর রাজ্জাক। তবে এই দুজনকে রেটিং পয়েন্টে ছাড়িয়ে গেছেন মিরাজ। ২০০৯ সালের নভেম্বরে সাকিবের রেটিং পয়েন্ট ছিল ৭১৭।
দ্বিতীয় ওয়ানডে ম্যাচের পর অধিনায়ক তামিম ইকবালের কন্ঠে ফুটে উঠল মিরাজ-মুস্তাফিজের প্রশংসা, ‘বোলাররা অসাধারণ করেছে। অভিষেকে শরিফুল, কনকাশনের (সাইফউদ্দিনের) পর তাসকিন, মুস্তাফিজ যেভাবে বল করেছে কাজটা সহজ নয়, কিন্তু যেভাবে বল করেছে, তাদের লড়াকু মানসিকতাই ফুটে উঠেছে। মিরাজ আবারও দুর্দান্ত বল করেছে, সাকিব যথারীতি ভালো ছিল। বোলিং নিয়ে আমি খুবই খুশি।’
লঙ্কানদের বিপক্ষে ব্যাট দারুণ ছন্দে থাকা মুশফিকুর রহিমও ক্যারিয়ার সেরা রেটিং পয়েন্ট পেয়েছেন। ওয়ানডে ব্যাটিং র‌্যাঙ্কিংয়ের ১৪ নম্বরে থাকা মুশফিকের রেটিং পয়েন্ট ৭৩৯। যা বাংলাদেশের যেকোনো ব্যাটসম্যানের মধ্যে সেরা। তামিম ইকবালের ৭৩৭ পয়েন্ট ছিল আগের সেরা।
মুশফিকের দৃঢ়চেতা ব্যাটিং নিয়ে খুশির সীমা নেই দলপতির, ‘আজকে (দ্বিতীয় ওয়ানডেতে) যদি দেখেন, আমরা ইনিংসের মাঝপথে অনেক উইকেট হারিয়েছি। একটা সময় দুইশ রানও কঠিন মনে হচ্ছিল। এরপর মুশির ইনিংস সত্যিই দারুণ ছিল। রিয়াদ ভাই কিছুটা অবদান রাখেন। তাতে আমরা মোটামুটি একটা স্কোরে যেতে পারি।’
আইসিসির সর্বশেষ ওয়ানডে বোলার র‌্যাঙ্কিংয়ের শীর্ষে আছেন নিউজিল্যান্ডের পেসার বোল্ট। ৭৩৭ রেটিং পয়েন্ট নিয়ে সবার উপরে বাঁহাতি এই পেসার। দুইয়ে জায়গা করে নেওয়া মিরাজের রেটিং পয়েন্ট ৭৩৫। ৭০৮ রেটিং পয়েন্ট নিয়ে তিন নম্বরে আছেন আফগানিস্তানের অফ স্পিনার মুজিব-উর-রহমান।
সেরা দশের মধ্যে স্পিনার হিসেবে আছেন মিরাজ ও মুজিব, বাকি সবাই পেসার। চার নম্বর জায়গাটি নিউজিল্যান্ড পেসার ম্যাট হেনরির। ডানহাতি এই পেসারের রেটিং পয়েন্ট ৬৯১। ভারতের পেসার জসপ্রিত বুমরাহ ৬৯০ রেটিং পয়েন্ট নিয়ে পাঁচ নম্বরে।
প্রোটিয়া পেসার কাগিসো রাবাদা ছয় নম্বরে। এরপরই আছেন ইংল্যান্ডের পেসার ক্রিস ওকস। অস্ট্রেলিয়ার পেসার জস হ্যাজলউড আট নম্বরে। মুস্তাফিজ নয় এবং অজি পেসার প্যাট কামিন্স ১০ নম্বরে। এছাড়া অলরাউন্ডারদের র‌্যাঙ্কিংয়ে যথারীতি শীর্ষে আছেন সাকিব। তবে প্রথম দুই ম্যাচের পর রেটিং হারিয়েছেন তিনি। ৪০৮ নিয়ে সিরিজ শুরু করা তার রেটিং এখন ৩৯৬।

শেয়ার করুন:

আরো সংবাদ:
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০১৪ - ২০২১ © এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার সম্পূর্ণ বেআইনি এবং শাস্তিযোগ্য অপরাধ।
Developer By Zorex Zira