বাংলাদেশের ইতিহাসে শেখ ফজিলাতুন নেছা’র অবদান চির স্মরণীয় হয়ে থাকবে-এমপি মুকুল


সোনিয়া আক্তার, বোরহানউদ্দিন ॥

দৈনিক ভোলা টাইমস্:  ভোলা-২ আসনের সংসদ সদস্য আলী আজম মুকুল বলেন,জাতির পিতার আদর্শ বাস্তবায়নে নেপথ্যে যিনি কাজ করেছেন তিনি হলেন বঙ্গমাতা বেগম ফজিলাতুন্নেছা মুজিব।এ মহীয়সী নারী সব সময় জাতির জনকের ছায়াসঙ্গী ছিলেন। তিনি ছিলেন জাতির পিতার রাজনৈতিক জীবনের সার্বক্ষণিক সহযোদ্ধা। জাতির জনক যখন কারাগারে ছিলেন তখন তিনি দলীয় নেতাকর্মীদের দিক নির্দেশনা দিতেন।

স্বাধীন বাংলাদেশের ইতিহাসে তার অবদান চির ভাস্বর হয়ে থাকবে। ভোলার বোরহানউদ্দিন উপজেলায় বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন নেছা’র ৯০তম জন্মবার্ষিকী উদযাপন উপলক্ষে আলোচনা সভা ও সেলাই মেশিন বিতরণ অনুষ্ঠানে তিনি আরও বলেন, শেখ ফজিলাতুন নেছা মুজিব আমৃত্যু জাতির পিতাকে সঙ্গ ও সাহস দিয়েছিলেন।

তিনি ১৫ আগষ্ট ইতিহাসের নির্মম হত্যাকান্ডে নিহত সকলের রুহের মাগফেরাত কামনা করেন। উপজেলা প্রশাসন ও মহিলা বিষয়ক অধিদপ্তর এর আয়োজনে নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ সাইফুর রহমান এর সভাপতিত্বে শনিবার সকালে উপজেলা পরিষদ হলরুমে এ সভা অনুষ্ঠিত হয়। গণভবন থেকে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন নেছা’র ৯০তম জন্মবার্ষিকী উদযাপনের অনুষ্ঠান উদ্বোধন করেন। আলোচনা সভার শুরুতে বক্তব্য রাখেন সদ্য যোগদানকারী নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ সাইফুর রহমান।

দিবসটি উপলক্ষে সারা দেশের ন্যায় বোরহানউদ্দিন উপজেলায় ছয়জন অসহায়, দুঃস্থ প্রতিক্ষণপ্রাপ্ত কর্মহীন নারীকে সেলাই মেশিন বিতরণ করা হয়। এছাড়া নন এমপিওভূক্ত ৩৯৮ জন শিক্ষককে ৫ হাজার এবং১৫ জন কর্মচারী কে ২৫০০ টাকা করে প্রধানমন্ত্রীর ত্রাণ তহবিল থেকে আর্থিক অনুদান প্রদান করেন আলী আজম মুকুল এমপি।

অনুষ্ঠানে আরও উপস্থিত ছিলেন উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান আবুল কালাম,বোরহানউদ্দিন পৌরসভার মেয়র মোঃ রফিকুল ইসলাম,আ’লীগ সভাপতি জসিম উদ্দিন হায়দার,উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান রাসেল আহমেদ মিয়া,মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান মাহফুজা ইয়াসমিন, বিভিন্ন ইউপির চেয়ারম্যান সরকারি,বেসরকারি দপ্তরের কর্মকর্তাবৃন্দ।

Facebook Comments